মুস্তাফিজের আগুনে বোলিংয়ের পরও ব্যাটিং ব্যর্থতায় রাজস্থানের হার

দুর্দান্ত বোলিংয়ে দিল্লি ক্যাপিটালসকে আটকে রেখে জয়ের লক্ষ্যটা রাজস্থানের নাগালে রেখেছিলেন মুস্তাফিজুর রহমান। কিন্তু তার সব প্রচেষ্টা ব্যর্থ হয়েছে ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায়। আজ শনিবার দিনের প্রথম ম্যাচে মুস্তাফিজের রাজস্থানকে ৩৩ রানে হারিয়ে দিয়েছে দিল্লি ক্যাপিটালস। দিল্লির ১৫৪ রান তাড়া করতে নেমে নির্ধারিত ২০ ওভারে ১২১ রানে থেমে যায় রাজস্থানের ইনিংস। এই হারেও অবশ্য পয়েন্ট টেবিলে তৃতীয় স্থান ধরে রেখেছে রাজস্থান।

টস জিতে ফিল্ডিংয়ে নামা রাজস্থানের হয়ে বল হাতে ইনিংস শুরু করেন মুস্তাফিজ। ওই ওভারে দিয়েছেন মাত্র ৬ রান। ১২তম ওভারে ফের বল হাতে নিয়ে ফিরিয়ে দেন ঋষভ পন্থকে (২৪)। ফিজের বল পন্থের ব্যাটে লেগে স্টাম্প ভেঙে দেয়। ফিরতি ওভারে এসে দুর্দান্ত এক ইয়র্কারে ১৬ বলে ২৮ রান করা বিধ্বংসী শিমরন হেটমায়ারকে চেতন সাকারিয়ার তালুবন্দি করেন ফিজ। তার আরো একটি ওভার জমিয়ে রাখা হয় শেষ ওভারের জন্য। স্লগ ওভারে মুস্তাফিজই সম্রাট। তাই তার হাতেই বল তুলে দেন অধিনায়ক সঞ্জু স্যামসন।

ওই ওভারে দিয়েছেন ৯ রান। একটি রান-আউটের সুযোগ থাকলেও হয়নি। ৪ ওভার বোলিং করে মাত্র ২২ রান দিয়ে মুস্তাফিজ তুলে নিয়েছেন ২ উইকেট। ফিজ ছাড়াও চেতন সাকারিয়া ২ উইকেট নিয়েছেন। তবে ৪ ওভারে ৩৩ রান দিয়ে তিনি বেশ খরুচে। ১ উইকেট নেওয়া কার্তিক ত্যাগীও বেদম মার খেয়েছেন। ৪ ওভারে দিয়েছেন ৪০ রান। ৩ ওভারে ১৭ রানের বিনিময়ে আরেকটি উইকেট নিয়েছেন রাহুল তেওয়াটিয়া। দিল্লির হয়ে ৩২ বলে সর্বোচ্চ ৪৩ রান করেছেন ওপেনার শ্রেয়স আইয়ার।

জবাবে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরু থেকেই নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারতে থাকে রাজস্থান। দুই ওপেনার লিভিংস্টোন (১) আর যশস্বী জয়সওয়াল (৫) দ্রুত ফিরে যান। তিন নম্বরে নেমে একপ্রান্ত আগলে ৫৩ বলে অপরাজিত ৭০* রানের দারুণ ইনিংস উপহার দেন রাজস্থান অধিনায়ক সঞ্জু স্যামসন। কিন্তু তার ইনিংসটি বৃথা যায় বাকি ব্যাটসম্যানদের ব্যর্থতায়। বিধ্বংসী ডেভিড মিলার ১০ বলে ৭, রায়ান পরাগ ৭ বলে ২, মহিপাল ২৪ বলে ১৯ রানের মতো ধীরগতির ইনিংস খেললে ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১২১ রানে থামে রাজস্থান।

মন্তব্য

মন্তব্য