বোরহানউদ্দিনে মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে মুক্তিযোদ্ধার সাংবাদিক সম্মেলন

বোরহানউদ্দিন (ভোলা) প্রতিনিধিঃ
মিথ্যা মামলার প্রতিবাদে ভোলা বোরহানউদ্দিন উপজেলার বড়মানিকা ইউনিয়নের মুক্তিযোদ্ধা মো: শাহজাহান হাওলাদার পিতা মৃত: জয়নাল আবেদিন হাওলাদার সাংবাদিক সম্মেলন করেন। রবিবার বিকাল ৩টায় বোরহানউদ্দিন শাহবাজপুর প্রেসক্লাব কার্যালয়ে তিনি লিখিত বক্তব্যে তিনি তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন হয়রানীর তুলে ধরে বলেন, আমি ১৯৭১ সালে মহান মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহন করেছি। আমার মুক্তিযোদ্ধ সনদ নং- ম-৮৭৩২৬ এবং স্বারক নং-ভোলা-৬২/২০০২/৭৬৭। গেজেট নং ৩৬৬, তারিখ- ১৭-০৪-২০০৫। লাল মুক্তিবার্তা নম্বর ০৬০৪০৬০১৬৯। যুদ্ধে আমার আত্বত্যাগের স্বীকৃতি স্বরুপ সরকারের বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা ভোগ করে আসছি।
কিন্তু আমার পারিবারিক প্রতিপক্ষ চাচাতো ভাই মো: লোকমান হোসেন হাওলাদার, পিতা-মৃত নুরুল হক হাওলাদার পারিবারিক জমিজমা বিরোধের জের ধরে দীর্ঘ দিন আমাকে ও আমার পরিবারকে বিভিন্ন মিথ্যা হয়রানি মুলক মামলা ও হুমকি ধমকি দিয়ে আমাকে আর্থিক ও সামাজিকভাবে ক্ষতিগ্রস্থ করে আসছে। হয়রানি মূলক মামলাগুলো, বিজ্ঞ আদালতে আমার পিতা মরহুম জয়নাল আবদিন এর নামে মৃত্যুর প্রায় ২৫ বছর পর দেওয়ানী মামলা করেন। যাহা নং ১৩/১৮। এ মামলাটি চলমান রয়েছে। এ মামলায় ক্ষান্ত না হয়ে বিজ্ঞ সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে চাঁদাবাজী মামলা করেন যার নং- এম.পি নং ৬৪/১৮। যাহা হতে আমি ১৯-১২-১৮ ইং তারিখে খালাস পাই। তিনি লিখিত বক্তব্য আরোও বলেন, মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রানালয় অভিযোগ দিলে ১১৬৭ নং স্বারকে তারিখ ৮-১১-২০১৮ ইং অনুসন্ধ্যানপূর্বক প্রতিবেদন দাখিলের জন্য পুলিশ সুপার ভোলা কে নির্দেশ প্রদান করেন। পুলিশ সুপার, লালমোহন সার্কেল (অতিরিক্ত পুলিশ সুপার) কে তদন্তের দায়িত্ববার দিলে তিনি তদন্ত করে আমাদের পারিবারিক জমি সংক্রান্ত বিরোধের বিষয়টি ব্যাপক অনুসন্ধ্যান পূর্বক জানতে পেরেছে এবং আমার মুক্তিযোদ্ধার সকল তথ্যদি সঠিক পেয়ে প্রতিবেদন দাখিল করেন। অনুসন্ধানপূর্বক প্রতিবেদন স্বারক নং পু:অ:ভোলা/অপরাধ-২০১৮/৪৭৩২/ভি, তারিখ: ২৩-১১-২০১৮ খ্রি: এবং পুলিশ হেডকোয়াটার্স, ঢাকার স্বারক নং ৪৪.০১.০০০০.০৩৬.০২.০১৪.১৮-১৫৬৫, তারিখ ১৫-১১-২০১৮ খ্রি:। যাহা প্রতিপক্ষের অভিযোগ মিথ্যা প্রমাণিত হয়।
উল্লেখিত মামলাগুলো মহামান্য আদালত ও তদন্ত কর্মকর্তা কর্তৃক মিথ্যা প্রমানিত হয় এবং কিছু মামলা এখনও চলমান আছে। তারপরও আমার প্রতিপক্ষ লোকমান হোসেন হাওলাদার ক্ষান্ত হয়নি তিনি ধারাবাহিকভাবে এখনও মামলা মোকদ্দমা সহ বিভিন্ন সরকারি দপ্তরে আমার বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ দিয়ে যাচ্ছে। এমন কি আমার মরহুম ভাই মো: কা ন হাওলাদারের মার্ডার মামলার আসামীদের সঙ্গে নিয়া জোট করে আমার পরিবার ও আমার জীবন অতিষ্ঠ সহ জীবন নাশের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে যা আমি একজন মহান মুক্তিযুদ্ধের আত্বত্যাগকারী যোদ্ধা হিসাবে সমাজ ও রাষ্ট্রের কাছে এর প্রতিকার চাচ্ছি যাতে সমাজে আমি সাধারন ও নিরিবিলি জীবন ধারন করতে পারি তাহার ব্যবস্থা করতে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন এ মুক্তিযোদ্ধা।

মন্তব্য

মন্তব্য