গাজীপুরে বাস-লেগুনা সংঘর্ষ, নিহত ৫, আহত ১০

সাইফুল আলম সুমন,নিজস্ব প্রতিবেদকঃ

গাজীপুর মহানগরীর রাজেন্দ্রপুরে গার্মেন্টস শ্রমিকবাহী বাস ও লেগুণার মুখোমুখী সংঘর্ষে পাঁচ জন নিহত ও ১০ জন আহত হয়েছে। সোমবার সকাল পৌনে আটটায় রাজেন্দ্রপুর-কাপাসিয়া সড়কের হালডোবা এলাকায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের ট্রাফিক ইন্সপেক্টর মোহাম্মদ সিরাজ দুর্ঘটনা ও হতাহতদের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। হতাহত সবাই লেগুনার যাত্রী।

নিহতরা হলেন সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার গুলটা বাজার এলাকার নাজিম উদ্দিন (৫৮),একই এলাকার আব্দুছ সামাদ (৬২) ও রাতুল (১৮), মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলার লক্ষীপুর এলাকার সেনাবাহিনীর (অব:) সার্জেন্ট মিজানুর রহমান (৫০), রাজবাড়ীর পাংশা উপজেলার জাগীর বাগদি গ্রামের আসাদ বিশ্বাসের ছেলে মাজেদ (৩৮)।

গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসক প্রণয় ভূষণ দাস বলেন, আহতদের মধ্যে ছয়জনকে হাসপাতালে আনা হয়েছে। তারা হলেন, নিশান আহমেদ (২৮), খাইরুল ইসলাম (৪০), দুলাল (৪৩) ও খলিল মিয়াসহ (৩৮) দুইজনকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। গুরুতর আহত দুলালকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আহত অন্যান্যদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

সেনা পোশাকে সন্তানের মুখ দেখা হলো না তাদের
রাজেন্দ্রপুর সেনানিবাসে সোমবার ছিল পাসিং আউটের অনুষ্ঠান। সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত সার্জেন্ট মিজানুর রহমান তাঁর ছেলে শিহাবের প্রশিক্ষণ শেষে আজ সেনাবাহিনীর সদস্য হিসেবে যাত্রা শুরুর অনুষ্ঠানে (পাসিং আউট) যোগ দিতে রাজেন্দ্রপুর সেনানিবাসে আসছিলেন। একই ভাবে সিরাজগঞ্জের তারাশ উপজেলা থেকে ছেলে রবিউলকে সেনা পোশাকে দেখতে এসেছিলেন বাবা নাজিম উদ্দিন। তবে একা নয়। সঙ্গে নিয়ে এসেছিলেন রবিউলের মামা আব্দুস সামাদ ও চাচাতো ভাই রাতুলকে। রাতভর দীর্ঘ পথ অতিক্রম করে সকালে ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কের রাজেন্দ্রপুরে নেমে উঠেছিলেন লেগুনায়। আর ছিল মাত্র কয়েক মিনিটের পথ। এরই মধ্যে সড়ক দুর্ঘটনায় পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান তারা। সেনা পোশাকে ছেলের মুখ দেখা অধরাই থেকে গেল তাদের।

গাজীপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের ট্রাফিক ইন্সপেক্টর মোহামম্মদ সিরাজ জানান, রাজেন্দ্রপুর থেকে লেগুনাটি কাপাসিয়া যাওয়ার পথে বিপরীত দিক থেকে আসা গার্মেন্টস শ্রমিকবাহী বাসটি বাংলা বাজারের উদ্দ্যেশে যাওয়া পথে হালডোবা এলাকায় যাত্রীবাহী লেগুনার সঙ্গে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই তিনজন নিহত ও ১০ জন আহত হয়।হাসপাতালে নেওয়া পর আরোও দু’জন নিহত হয়। নিহতদের লাশ উদ্ধার করে গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ দুর্ঘটনা কবলিত বাস ও লেগুনা আটক করেছে।

মন্তব্য

মন্তব্য