হাজারতম টেস্ট খেলবে ভারতের বিপক্ষে ইংল্যান্ড

ধারনা করা যাচ্ছে, হয়তো কোন ১০০০ এর কথা বলা হচ্ছে। হ্যাঁ, কাল বার্মিংহামে প্রথম দল হিসেবে নিজেদের টেস্ট ইতিহাসের ১০০০তম ম্যাচ খেলতে নামবে ইংল্যান্ড। ১৮৭৭ সালে টেস্ট যাত্রা শুরু হয়েছিল ইংল্যান্ডের। অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে মেরিলিবোন ক্রিকেট ক্লাবে অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম টেস্ট ম্যাচ খেলতে নেমেছিলেন ইংলিশরা। সেটা টেস্ট ইতিহাসের, ক্রিকেট ইতিহাসেরও প্রথম কোনো স্বীকৃত ম্যাচ ছিল। তারপর থেকে এই অবধি ৯৯৯টি টেস্ট খেলেছে ইংল্যান্ড। কাল ভারতের বিপক্ষে খেলতে নামবে ১০০০তম টেস্ট।

ইংল্যান্ডের এমন মাইলফলক স্পর্শ করা নিয়ে আলোচনা সর্বত্র। ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা আইসিসির পক্ষ থেকে অভিনন্দন বার্তা পাঠানো হয়েছে ইংল্যান্ডকে। এক বিজ্ঞপ্তিতে আইসিসি চেয়ারম্যান শশাঙ্ক মনোহর বলেন, ‘ক্রিকেট পরিবারের পক্ষ থেকে ইংল্যান্ডকে এই ঐতিহাসিক মুহূর্তে অভিনন্দন জানাতে চাই। বিশ্বের প্রথম দল হিসেবে এক হাজার টেস্ট ম্যাচ খেলতে যাচ্ছে তারা।’

ইংল্যান্ডকে নিয়ে এতো আলোচনায় গা ভাসাতে চাইবেন না হয়তো ভারতীয়রা। দক্ষিণ আফ্রিকা গিয়ে টেস্ট জিতে এসেছিল ভারত। তারপর বলা হচ্ছিল বিরাট কোহলির ভারত বিদেশে টেস্টেও শক্তিশালী। তার একটা প্রমাণ তো রাখতে হবে। ভারতের সামনে বেশ কিছু বাধাও আছে। দক্ষিণ আফ্রিকায় ভারতের সাফল্যে বড় অবদান ছিল দুই পেসার ভুবনেশ্বক কুমার ও তরুণ জাসপ্রিত বুমরাহর।

কিন্তু ইনজুরির কারণে দুজনেরই কাল খেলতে নামার কথা নয়। ফলে উমেশ যাদব এবং ইশান্ত শর্মার দিকেই তাকিয়ে থাকতে হবে কোহলিকে। ওপেনিং ব্যাটসম্যান নিয়েও অস্বস্তিতে ভারত। মুরালি বিজয়, লোকেশ রাহুল ও শিখর ধাওয়ান এই তিনজনের মধ্যে কোন দুজন ওপেনিং করবে তার উত্তর অনেকদিন যাবতই খুঁজছে কোহলির দল। এদিকে, একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচটিতে খুব একটা ভালো করতে পারেননি ভারতীয় বোলাররা। এটাও চিন্তার বিষয়।

মন্তব্য

মন্তব্য