আমতলীতে এক চেয়ারম্যান ও তার স্ত্রী  আক্রান্ত। আতঙ্কে উপজেলাবাসী।

মোঃ শহিদুল ইসলাম জেলা প্রতিনিধি //
বরগুনার আমতলী উপজেলার চাওড়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের ছয় ঘন্টা পরে স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের খবর পাওয়া গেছে । চেয়ারম্যান দম্পতি আক্রান্তের খবরে চাওড়া ইউনিয়নের মানুষের মাঝে আতঙ্ক বিরাজ করছে। খবর পেয়ে ইউএনও মনিরা পারভীন শনিবার তার পৌর শহরের বাড়ীসহ পাঁচ  বাড়ী লকডাউন করে দিয়েছেন। ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও তার স্ত্রী সহ  আমতলীতে ১১ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তবে আক্রান্তের বেশির ভাগই আমতলী পৌরসভা ও চাওড়া এলাকার।

জানাগেছে, আমতলী উপজেলার চাওড়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানসহ কয়েকজন চেয়ারম্যান সম্প্রতিক বিশেষ কাজে ঢাকা যান। ঢাকা থেকে আসার পরপরই চাওড়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যানের শরীরের অবস্থা খারাপ দেখে গত বৃহস্পতিবার তার পরিবারের লোকজন আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে খবর দেয়। ওই হাসপাতালের চিকিৎসক ও মেডিকেল টেকনোলজিষ্টরা তার বাসা থেকে চেয়ারম্যান ও তার স্ত্রীর নমুনা সংগ্রহ করে নিয়ে আসে। ওইদিনই তাদের নমুনা ঢাকা রোগতত্ত্ব রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটে পাঠায়। শনিবার দুপুরে চেয়ারম্যানের নমুনা প্রতিবেদন আমতলী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসে। ওই নমুনা প্রতিবেদনে উল্লেখ আছে তিনি প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। চেয়ারম্যান করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের ছয় ঘন্টা পর ওইদিন বিকেলে তার স্ত্রী করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের প্রতিবেদন আমতলী হাসপাতালে আসে। চেয়ারম্যান দম্পতি করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের খবরে চাওড়া ইউনিয়নের মানুষের মাঝে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। চেয়ারম্যান দম্পতি তাদের আমতলী পৌরসভার ১ নং ওয়ার্ডের বাসার হোম আইসোলেশনে আছেন এবং ও বাসায় চিকিৎসা নিচ্ছেন।

মন্তব্য

মন্তব্য