কালীগঞ্জে রোজা রেখে ধানকাটা অব্যাহত রেখেছেন উপজেলা ছাত্রলীগ

মো: ইব্রাহীম খন্দকার,সিনিয়ার রিপোর্টার //
কালীগঞ্জের মোক্তারপুর ইউনিয়নের কৃষকদের বাম্পার ফলন হলেও করোনাভাইরাসের প্রভাবে ধান কাটা নিয়ে বিপাকে পড়েছেন অনেক কৃষক। করোনার সংক্রমণ থেকে বাঁচতে সবাই কার্যত অবরুদ্ধ।
এমন পরিস্থিতে রবিবার (৩ মে) ২০ইং  রমজান মাসে রোজা রেখে ‘কৃষক বাচলে বাচবে দেশ’ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিদের্শনা ও গাজীপুর- ৫ কালীগঞ্জের সংসদ সদস্য মেহের আফরোজ চুমকি এমপি নির্দেশে  কালীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি তানভির মোল্লা ও সাধারন সম্পাদক ওয়াহিদ হাসানের নেতৃত্ব মোক্তারপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের উদ্যোগে মোক্তারপুর ইউনিয়নের রামচন্দ্রপুর গ্রামের কৃষক আলফাউদ্দিনের ২বিঘা জমির ধান কেটে  মারাই করে বাসায় পৌছে দেন মোক্তারপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগ। কেন্দ্র থেকে তৃণমূল পর্যন্ত ছাত্রলীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা নিজেদের ঝুঁকি আছে জেনেও স্বতঃস্ফূর্তভাবে এসব কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে যাচ্ছে।
কৃষক আলফাউদ্দিনের বলেন, প্রতি বছর আমরা দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে আসা শ্রমিকদের দিয়ে ধান কাটালেও এবার করোনার কারণে শ্রমিকরা আসতে চাইছেন না। এমন সময় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা মাঠে ধান কেটে আমাদের কৃষকদের উৎসাহ দিচ্ছেন এটি অনেক প্রশংসনীয় কাজ। ছাত্রলীগ কর্মীরা করোনার সংকটময়ে ধান কেটে কৃষকদের সহযোগিতা করতে এগিয়ে আসায় বন্যা, ঝড়, শিলা বৃষ্টির আগেই ধান ঘরে তুলতে পারবে আমার মত সকল কৃষক। এতে দেশের খাদ্য সংকট কমে যাবে।
এ বিষয়ে কালীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের  সংগ্রামী সভাপতি তানভির মোল্লা সাথে কথা বললে তিনি বলেন, দেশের এ ক্রান্তিকালে কৃষকেরা রোদে পুড়ে, বৃষ্টিতে ভিজে যে ফসল ফলিয়েছে সেই ধান, কৃষি শ্রমিকের অভাবে তারা মাঠ থেকে কেটে ঘরে তুলতে পারছেনা। তাই  ‘কৃষক বাচলে বাচবে দেশ’ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নিদের্শনা ও গাজীপুর- ৫ কালীগঞ্জের সংসদ সদস্য মেহের আফরোজ চুমকি এমপি এবং বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ ও গাজীপুর জেলা ছাত্রলীগের নির্দেশে আমি কালীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগ কর্মীদের সঙ্গে নিয়ে, কালীগঞ্জের কৃষকদের পাশে দাঁড়াতে একটি সাহায্যকারী টিম তৈরি করেছি। যার মাধ্যমে আমরা আজকে  ১৫ সদস্যের টিমটি কালীগঞ্জ উপজেলার মোক্তারপুর ইউনিয়নের রামচন্দ্রপুর গ্রামের কৃষক আলফাউদ্দিনের জমির ২বিঘা ধান কেটে বাড়িতে নিয়ে ধান মাড়াই করে দিয়ে এসেছি।
কালীগঞ্জ উপজেলা ছাএলীগের সভাপতি আরো জানান, কৃষকদের মাঠের ধান কাটা শেষ না হওয়া পর্যন্ত প্রতিনিয়ত আমাদের এ সেবা মূলক কার্যক্রম চলতে থাকবে।
উপজেলা ছাত্রলীগের সংগ্রামী সভাপতি তানভীর মোল্লা সহ  উপস্থিত ছিলেন কালীগঞ্জ উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সফল সাধারণ সম্পাদক সাদিকুর ভূঁইয়া,মোক্তারপুর ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সংগ্রামী সভাপতি শেখ সেলিম এবং মোক্তারপুর  ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সকল নেতৃবৃন্দ।

মন্তব্য

মন্তব্য