হোমনায় করোনা উপসর্গ নিয়ে চার বছরের কন্যা শিশুর মৃত্যু

আইয়ুব আলী, হোমনা প্রতিনিধি //
কুমিল্লার হোমনায় করোনা ভাইরাসের উপসর্গ নিয়ে চার বছরের এক কন্যা শিশুর মৃত্যু হয়েছে। নানার বাড়িতে বেড়াতে এসে শুক্রবার ভোরে বিজয়নগর গ্রামে তার মৃত্যু হয়। গত ২০ থেকে ২৫ দিন আগে সে উপজেলার বিজয়নগর গ্রামে তার মায়ের সাথে নানা মো. বিল্লাল হোসেনের বাড়িতে বেড়াতে আসে। শিশুটির বাড়ি বাঞ্ছারামপুর উপজেলার মায়রামপুর গ্রামে। করোনা সন্দেহে শিশুটির নমুনা সংগ্রহ করেছে উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ।
জানা গেছে, শিশুটির দাফন কাফন ও জানাজার জন্য স্থানীয়ভাবে কোনো লোক না আসায় উপজেলা ইমাম সমিতির লোকদের নিয়ে প্রশাসন কর্তৃক যে কমিটি গঠন করা করেছে তারাই স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান নাজিরুল হক ভূইয়ার সহযোগিতায় জানাযা ও দাফন সম্পন্ন করে।
উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আবদুস সালাম সিকদার জানান, শিশুটি গত এক সপ্তাহ যাবত অসুস্থ্য। এতদিন শিশুর পরিবারের লোকজন তাকে স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা দিয়ে আসছিলেন। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে শিশুর পিতা আমাকে ফোনে জানায়, তার মেয়ে ঠান্ডা, কাশি ও শ্বাসকষ্টসহ প্রচন্ড জ্বরে কেমন যেনো করছে। পরে তাকে দ্রæত হাসপাতালে নিয়ে আসতে বলি। এরপর হাসপাতালে নিয়ে আসার পর তার অবস্থার অবনতি হলে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তাকে ঢাকায় রেফার করা হয়। ঢাকায় নেয়ার সময় পথেই শিশুটি মারা যায়। করোনা সন্দেহে শিশুর নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। এখন উপজেলার নিলখি ইউনিয়নের আরো দু’টি নমুনাসহ ঢাকা আইইডিসিআরে পাঠানো হবে।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার তাপ্তি চাকমা বলেন, উপজেলা ইমাম সমিতির মাধ্যমে প্রশাসন কর্তৃক যে কমিটি গঠন করা হয়েছে করোনা রোগীর মতোই শিশুটির মৃতদেহ দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে। শিশুটির পরিবারের অন্য সদস্যদের হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য

মন্তব্য