হোমনায় হটলাইনে ফোন দিলেই খাদ্য সামগ্রী ঘরে পৌঁছে দিচ্ছেন- এমপি সেলিমা আহমাদ

আইয়ুব আলী, হোমনা প্রতিনিধি
কুমিল্লার হোমনায় মহামারী করোনা ভাইরাসের কারনে ঘরে বসে থাকা কর্মহীন ও অসহায় হতদরিদ্র এবং যাদের ঘরে খাদ্য সংকট আছে এমন ব্যক্তিদের হটলাইনে ফোন দিলেই তাৎক্ষনিকভাবে খাদ্য সামগ্রী ঘরে পৌঁছে দিচ্ছেন হোমনা-তিতাস আসনের স্থানীয় সংসদ সদস্য সেলিমা আহমাদ মেরীর হটলাইন টিম ও উপজেলা ছাত্রলীগ পরিবার।
কোন মানুষ যাতে না খেয়ে থাকে সে জন্য হোমনায় ও তিতাস উপজেলার ১৯ টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভায় তার নিজস্ব তহবিল থেকে প্রায় ২০ হাজার ব্যাগ খাদ্য সামগ্রী বাড়ি বাড়ি পৌঁছানো হয়েছে এবং খাদ্য সামগ্রী বিতরণ কার্যক্রম অব্যহত রয়েছে। তার এই ব্যক্তিগত কর্মসূচি যতদিন পর্যন্ত দেশের করোনা পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হবে ততদিন পর্যন্ত ঘরে ঘরে খাবার পৌঁছে দেওয়ার কার্যক্রম অব্যহত থাকবে ।
জানা যায়,হট লাইন ছাড়া স্থানীয় নেতৃবৃন্দের মাধ্যমে গরীব ও অসহায় মানুষের মাঝে বিভিন্ন যানবাহণের মাধ্যমে তালিকা অনুযায়ী খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে । এই মহা সংকটে সাহায্য পেয়ে বিভিন্ন শ্রেণি পেশার কর্মহীন ও অসহায় মানুষগুলো স্বাভাবিকভাবে জীবন যাপন করতে কষ্ট হচ্ছে না এবং তারা শান্তিতে জীবন যাপন করে যাচ্ছেন ।
কুমিল্লা-২(হোমনা-তিতাস) আসনের এমপি সেলিমা আহমাদ মেরী জানান, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে করোনা সংকট মোকাবেলায় হোমনা-তিতাসবাসীর জন্য দিন-রাত পরিশ্রম করে কাজ করে যাচ্ছি।এ সংকটময় মুহূর্তে অসহায় মানুষ যাতে খাদ্য সংকটে না পড়ে এ জন্য আমরা বাড়িতে বাড়িতে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছে দিচ্ছি। তিনি আরও বলেন,নির্বাচনের সময় যে ভাবে আমি বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট চেয়েছি ঠিক সেই ভাবেই আমার খাদ্য সামগ্রী অসহায়দের বাড়ি বাড়ি পৌঁছে দিচ্ছি হটলাইন টিম ও ইউনিয়ন ছাত্রলীগ পরিবার।এছাড়াও তিনি বলেন, করোনা ভাইরাস থেকে নিজেকে ও নিজের পরিবার তথা দেশকে রক্ষা করতে হলে সবায় সচেতনত হন,ঘরে থাকুন, ভালো থাকুন ।

মন্তব্য

মন্তব্য