নগরীর হালিশহরে ভোলা জেলা ঐক্য পরিষদের উদ্যোগে নিত্যপ্রয়োজনীয় খাদ্য সামগ্রী বিতরন। 

সুদেব দাস সুমন //
করোনা ভাইরাসের করাল গ্রাসে দিশে হারা হয়ে পড়েছে মানুষ।দেশ চলছে লকডাউনের ভিতর,মোতায়েন করা হয়েছে সেনাবাহিনী, ফলে ঘর থেকে বের হতে পারছেনা খেটে খাওয়া মানুষ,যারা দিন এনে দিন খায়,হতদরিদ্র দিন মজুরি রিস্কাচালক। তাদের প্রতি সাহায্যর হাত বারিয়ে দিয়েছেন সরকারি ও বেসরকারিভাবে সংগঠন গুলো, যে ত্রান দেয়া হচ্ছে তাও প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল। এমন মানবতার পরিস্থিতিতে খেটে খাওয়া মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছে নগরীর হালিশহরে ভোলা জেলা ঐক্য পরিষদের সদস্যবৃন্দ। করোনার মহামারী পরিস্থিতিতে কষ্টে দিন কাট্টাছেন খেটে খাওয়া সিএনজি,রিক্সশা অটোরিক্সশা চালক,তাদের মাঝে আজ রবিবার সকালে সকল সদস্যদের সহযোগিতায় ভোলা জেলা ঐক্য পরিষদের এর অর্থায়নে ১০০ পরিবার কে চাল,ডাল,আলু,পেয়াজসহ নিত্যপ্রয়োজনী খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন, কোস্ট ট্রাস্টের ম্যানেজার, সুদের দাস সুমন, তিনি বলেন, সারাবিশ্ব আজও মহামারি করোনাভাইরাস নিয়ে আতঙ্কিত,আবিস্কৃত হয়নি কোন ওষুধ, তবে আমরা যদি সচেতন থাকি সরকার ঘোষিত নিয়ম মেনে চলি, হাসি-কাশি দেওয়া সময় কনুই বা রুমাল ব্যাবহার করি,মাস্ক পরি,সাবান পানি দিয়ে হাত ধুই, জীবানুনাশক দিয়ে আশ-পাশ পরিস্কার রাখি,সামাজিক দুরুত্ব বজায় রাখি তাহলে আমরা এ মহামারি করোনাভাইরাস থেকে সুস্থ থাকতে পারবো।এসময় ভোলা জেলা ঐক্য পরিষদের হালিশহর শাখার সভাপতি মোঃআলমগীর হোসেন বলেন,আসুন আমরা সবাই ঘরে থাকি,সামাজিক দুরত্ব বজায় রাখি,হতদরিদ্র মানুষের পাশে ধারাই, আমরা চাই, সরকারী বেসরকারি সংগঠনের পাশাপাশি সমাজের বিওোমান ব্যাক্তিবর্গ যেন এ মহামারি করোনাভাইরাস মোকাবেলায় সমাজের হতদরিদ্র,দিনমজুর,দুস্থ পরিবারের পাশে এসে ধারায়।এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন,সংগঠনের প্রধান মোঃ সিরাজ উদ্দিন,কার্যকরী সভাপতি মোঃফিরোজ,সাধারন সম্পাদক মোঃ জয়নাল, সহ-সভপতি মোঃ আলমগীর হোসেন,সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃঅালামিন সহ সদস্যবৃন্দ।

মন্তব্য

মন্তব্য