আঠারবাড়ী ইউনিয়নে ছাত্রলীগের কমিটিতে বিবাহিতদের নৈরাজ্য

উজ্জ্বল খান, ময়মনসিংহ প্রতিনিধি : ময়মনসিংহ জেলা ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলা ৪ নং আঠারবাড়ী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের আহবায়ক কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। উক্ত ছাত্রলীগের কমিটি হলেও বিবাহিতরা প্রাধান্য পেয়েছে। উক্ত কমিটির আহবায়ক মো: রবীন মিয়া বিবাহিত এবং তিনি ৫ম শ্রেণী পর্যন্ত পড়াশুনা করেন। যুগ্ম আহবায়ক জহিরুল ইসলাম জনি বিবাহিত। এলাকায় তিনি বর্তমান চেয়ারম্যানের মেয়ের জামাই বলে পরিচিত এবং আরো কয়েকজন এই আহবায়ক কমিটিতে বিএনপি ছাত্রদল নেতা ও মাদক ব্যবসায়ীরা স্থান পেয়েছে। উক্ত কমিটি ঘোষনার পর থেকে আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা কমিটি নিয়ে বিভিন্ন প্রতিক্রিয়া দেখাচ্ছে। কমিটি ঘোষণার পর পরই আহবায়ক কমিটির বিরুদ্ধে স্থানীয় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা কমিটি ভেঙ্গে দেওয়ার বিরুদ্ধে মিছিল করেন। এতে সাবেক ছাত্রলীগের নেতারা মনে করেন ছাত্রলীগ মানে ছাত্রদের সংগঠন। এতে বিবাহিতরা কিভাবে স্থান পায় ? এই কমিটি যারা দিয়েছেন তাদেরকে সঠিক তদন্ত করে নতুন কমিটি করার দাবী জানান। এ আহবায়ক কমিটির বিষয়ে আঠারবাড়ী ইউনিয়নের সাবেক ছাত্রলীগ নেতারা বলেন টাকার বিনিময়ে আঠারবাড়ী ইউনিয়ন আহবায়ক কমিটির গঠন করা হয়েছে। উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সাধারণ সম্পাদককে টাকার বিনিময়ে কমিটি দিয়েছেন। তাই সাবেক ছাত্রলীগ নেতারা মনে করেন উক্ত আহবায়ক কমিটি ভেঙ্গে দিয়ে নতুন করে কমিটি ঘোষণা দেয়া হোক। এ বিষয়ে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতির সাথে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন এ ধরনের বিবাহিতরা ছাত্রলীগ কমিটিতে স্থান পেয়েছে সেটা আমার জানা নেই এবং টাকার বিনিময়ে কমিটি দেওয়া হয় নাই। যদি কেউ বিবাহিত হয়ে থাকে তাহলে তাকে বহিস্কার করা হবে।

মন্তব্য

মন্তব্য