কালীগঞ্জে ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে ধর্ষক গ্রেফতার

কালীগঞ্জ (গাজীপুর) প্রতিনিধি:কালীগঞ্জে এক ৫ম শ্রেণি শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে এলাকাবাসী ওই ধর্ষককে আটক করে পিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। গতকাল সোমবার দুপুরে কালীগঞ্জ পৌরসভার ৫ নম্বর ওয়ার্ড মধ্য বালীগাঁও এলাকার স্কুল শিক্ষার্থী কয়েকবার ধর্ষণের শিকার হওয়ার অভিযোগে এলাকাবাসী ধর্ষক মাহিন্দ্র চালক হাফিজুল ইসলাম (৪২) কে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন কালীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. আবু বকর মিয়া। তিনি বলেন, ধর্ষককে এলাকাবাসী আটক করে পুলিশের হাতে তুলে দেয়। এ সংক্রান্ত বিষয়ে ভিকটিমের মামলার প্রস্তুতি চলছে। ধর্ষক মধ্য বালীগাঁও গ্রামের মৃত আলাউদ্দিন চৌকিদারের ছেলে।
ভিকটিমের পরিবার সূত্রে জানা যায়, ধর্ষণের শিকার বালীগাঁও মডেল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৫ম শ্রেণির শিক্ষার্থী। ওই শিক্ষার্থী স্কুলে যাওয়া-আসার পথে প্রতিবেশি ওই ধর্ষক হাফিজুল্লাহ তাকে প্রায়ই সময় উত্ত্যক্ত করতো। বিভিন্নভাবে ভয়ভীতি দেখিয়ে এরই মধ্যে কয়েকবার জোর পূর্বক বাড়ির আশেপাশে নিয়ে ওই শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ করে। বিষয়টি কাউকে বললে তাকে প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেয় ধর্ষক হাফিজুল্লাহ। রোববার ওই শিক্ষার্থী ধর্ষণের বিষয়টি তার পরিবার ও আত্মীয়স্বজনদের জানায়। বিষয়টি এক কান করে করে এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে। পরে উত্তেজিত এলাকাবাসী গতকাল সোমবার দুপুরে ওই ধর্ষককে এলাকায় আটক করে পিটুনি দিয়ে ধিক্কার জানাতে থাকে। পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে ওই ধর্ষককে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।
ধর্ষিতার পিতা এনামুল হক বলেন, রোববার আমার মেয়ে তার মামা বাড়ি পলাশ যাওয়ার পথে রাস্তায় তাকে আটকিয়ে ধর্ষণের চেষ্টা করে। পরে বিষয়টি মেয়ে আমাদের জানায়। জানোয়ার ধর্ষকের বিচার চাই।

মন্তব্য

মন্তব্য