কুমিল্লার দাউদকান্দিতে জমি সংক্রান্ত বিরোধে যুবককে গাছের সঙ্গে শিকল দিয়ে বেঁধে অত‍্যাচারের অভিযোগ

মোঃ গোলাম মোস্তফা, বিশেষ প্রতিনিধি, চট্টগ্রাম বিভাগ : কুমিল্লার দাউদকান্দিতে জমি সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে শাহীন নামে এক যুবককে গাছের সঙ্গে শিকল দিয়ে বেঁধে অত‍্যাচারের অভিযোগ উঠেছে তার বাবা ও সৎ ভাইয়ের বিরুদ্ধে।
গত বুধবার উপজেলার সুন্দলপুর ইউনিয়নের সুন্দলপুর গ্রামে (পূর্বপাড়ায়)ঘটনা ঘটে।
এ ঘটনায় শনিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) শাহীনের মামা মনসুর আলী বাদী হয়ে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে, দাউদকান্দি মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। শাহীনের মামা মনসুর আলী অভিযোগ করে বলেন, শাহীনের বাবা সেলিম দ্বিতীয় বিয়ে করার পর বেশ কিছুদিন থেকে শাহীনের সঙ্গে বসতবাড়ি ও জমি নিয়ে তাদের বিরোধ চলছিল। গত বুধবার বাবা ও সৎ ভাই সহ একাদিক সন্ত্রাসী নিয়ে শাহীনকে গাছের সঙ্গে শিকল দিয়ে বেঁধে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে। এ সময় তার কাছে থাকা একটি সোনার চেইন ও একটি মোবাইল ছিনিয়ে নেয় সন্ত্রাসীরা। স্থানীয় একালাবাসী পুলিশকে খবর দিলে ,ঘটনাস্থল থেকে শাহীনকে উদ্ধার করে গৌরীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। সুন্দলপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মাসুদ আলম বলেন, ‘শাহীনকে তার বাবা সেলিম ও সৎ ভাই মিলে জমি সংক্রান্ত বিরোধ নিয়ে জখম করেছ, এমন অভিযোগ শুনেছি। আমি এর আগেও একাধিকবার তাদের জমি সংক্রান্ত বিষয় নিয়ে বসে সমস্যা সমাধান করে দিয়েছিলাম।’ ঘটনার বিস্তারীত জানতে শাহীনের বাবা ওআত্বীয়দের সাথে একাধিকবার চেষ্টা করা হলেও যোগাযোগ করা যায়নি।
দাউদকান্দি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আলমগীর হোসেন বলেন, এ ব্যাপারে থানায় একটি মামলা হয়েছে। শনিবার দাউদকান্দি মডেল থানায় শাহীনের মামা ৯জন কে আসামি করে একটি মামলা দয়ের করেন।

মন্তব্য

মন্তব্য