যশোর থেকে উদ্ধারকৃত জেব্রা শ্রীপুরে বঙ্গবন্ধু সাফারী পার্কে

সাইফুল আলম সুমন,নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
গাজীপুরের শ্রীপুরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারী পার্কে নতুন আটটি জেব্রার আগমন ঘটেছে। বৃহষ্পতিবার দুপুর ২টার দিকে ওই পার্কে জেব্রাগুলো অবমুক্ত করা হয়। এগুলোর মধ্যে একটি পুরুষ ও বাকি সাতটি মাদী জেব্রা।

পার্কের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোতালেব হোসেন জানান, মঙ্গলবার বিকেলে যশোরের শার্শা উপজেলার সাতমাইল গরুর হাটের খোয়াড়ে ১০টি জেব্রা বাঁধা ছিল। খোয়াড়ের পাশে বড় দুটি কার্টুন বাঁধা ছিল। আশপাশে কেউ না থাকায় স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। পরে সেখান থেকে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ জেব্রাগুলো মঙ্গলবার রাত ১২টার দিকে যশোর পুলিশ লাইনে নিয়ে যায়। ততক্ষণে একটি জেব্রা মারা যায়। বুধবার সকাল ১০টার দিকে জেব্রাগুলো স্থানীয় বন বিভাগের কাছে হস্তান্তর করা হয়। এরপর আরও একটি জেব্রা মারা যায়। পরে বৃহষ্পতিবার দুপুরে ৮টি জেব্রা গাজীপুরের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারী পার্কে আনা হয়। এগুলোকে ভারতে পাচারের উদ্দেশ্যে বাংলাদেশকে ট্রানজিট হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছিল।

গাজীপুরের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারী পার্কের প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা.নিজাম উদ্দিন জানান, পার্কে আগে আরও ১৪টি জেব্রা ছিল। তার মধ্যে তিনটি পার্কে জন্ম নেয়া শাবক। নতুন আটটি মিলে এবার পার্কে জেব্রার সংখ্যা দাঁড়ালো ২২টিতে। নতুন আনা জেব্রাগুলো অপেক্ষাকৃত দুর্বল। এগুলোকে তিন সপ্তাহ সঙ্গরোধ অবস্থায় রাখা হবে। ঝুঁকিপূর্ণ কোনো রোগ ব্যাধি রয়েছে কিনা তা যাচাই বাছাই করে দেখা হবে। এদের বয়স তিন থেকে সাড়ে তিন বছর এবং অপ্রাপ্ত। স্বাভাবিক অবস্থায় রাখতে এগুলোকে প্রথমে গ্লোকোজ মিশ্রিত খাবার পানি দেয়া হয়েছে। খাবার হিসেবে মূলত: ভুট্টা, গম, ঘাস, গাজর, ছোলা, গমের ভুষি দেয়া হচ্ছে। প্রাপ্ত বয়ষ্ক বা সাড়ে চার থেকে পাঁচ বছরের জেব্রা বছরে একটি করে
বাচ্চা দেয়।

মন্তব্য

মন্তব্য